সীমিত আকারে গণপরিবহন খুলে দেয়ার আহবান ডা. জাফরুল্লাহর

মহামারী কোভিড-১৯ এ লকডাউন পরিস্থিতিতে সীমিত আকারে গণপরিবহন চালুর পরামর্শ দিয়েছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

 

শুক্রবার সকালে ‘আদর্শ নাগরিক আন্দোলন’ নামে একটি সংগঠনের ডাকা অবস্থান কর্মসূচি থেকে তিনি সরকারের কাছে এ সুপারিশ করেন।

 

জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, আজকে পথে পথে গাড়ি চলতে শুরু করেছে। কিন্তু সাধারণ মানুষের বাহন বাস চালু হয়নি। সে কারণে আমার একান্ত সুপারিশ প্রতি দুই ঘণ্টা পর পর গণপরিবহন চালু করা প্রয়োজন। আর প্রতি সপ্তাহে দুই দিন প্রাইভেটকার চালানো বন্ধ রাখতে হবে।

 

লকডাউনে কর্মহীন হয়ে কষ্টে যারা আছেন তাদের কাছে ত্রাণসামগ্রী পৌছে দেয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, সেনাবাহিনীসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর মাধ্যমে প্রান্তিক ও নিম্নবিত্ত মানুষের জন্য দুই মাস সরকারি খাদ্য সামগ্রী পৌঁছাতে হবে।

 

এ সময় ৫০ লাখ পরিবারকে ঈদ উপহার হিসেবে আড়াই হাজার টাকা করে নগদ দেয়ার যে উদ্যোগ নিয়েছেন, সেজন্য প্রধানমন্ত্রীকে সাধুবাদ জানান গণস্বাস্থ্যের ট্রাস্টি।

 

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, শহরে বেশিরভাগ মধ্যবিত্ত, নিম্ন মধ্যবিত্ত মানুষজন ভাড়া বাড়িতে থাকেন। করোনা পরিস্থিতির কারণে সব কিছু বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তাদের আয়-উপার্জন বন্ধ হয়ে গেছে। তাই তারা বাড়িভাড়া পরিশোধ করতে পারছে না, বিভিন্ন সেবামূলক বিল পরিশোধ করতে পারছে না। এদেরও প্রধানমন্ত্রী যেন ৫০ শতাংশ প্রণোদনা দেন।

 

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মুহাম্মদ মাহমুদুল হাসানের সভাপতিত্বে এতে বক্তব্য দেন ন্যাপ মহাসচিব গোলাম মোস্তফা ভুঁইয়া, ভাড়াটিয়া পরিষদের সভাপতি বাহারানে সুলতান বাহার, দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন প্রমুখ।

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *